অবশেষে অধিনায়ক হারাতে হচ্ছে স্টিভেন স্মিথ ও তার সহযোগী ডেভিড ওয়ার্নারকে।

বল টেম্পারিং  নতুন কিছু নয় তাই বলে এটার জন্য অধিনায়ক হারাতে হবে তা কখনো ভাবেনি স্টিভেন স্মিথ। অনেক ক্রিকেট তারকারা বল টেম্পারিং করেছিলেন কিন্তু এটার জন্য কেঊ তীব্র বিতর্কের মুখে পড়েনাই। বল টেম্পারিং  এর দায়ে অধিনায়ক হারাতে হচ্ছে স্টিভেন স্মিথকে  ও তার সহযোগী ডেভিড ওয়ার্নারকে।

 

টেস্টের তৃতীয় দিন বল টেম্পারিং  করতে ক্যামেরায় ধরা পড়ে ব্যানক্রফট । আর সেই ভিডিও ক্লিপ ছড়িয়ে পড়ে সোশ্যাল মিডিয়াতে তাতেই শুরু হয়ে যাই শোরগোল। আর খবর টি পোঁছারই অস্ট্রেলিয়া প্রধান মন্ত্রী পর্যন্ত।

গতকাল সংবাদ সম্মেলনে পুরো নিজেদের অপরাধ স্বীকার করে নেন স্মিথ।তিনি বলেন, ৪ টেস্টের সিরিজে ১-১ সমতা আছে।আর এই টেস্ট জিতলে ২-১-এ এগিয়ে যাব আমরা ,জয়ের পেতে মরিয়া হয়ে এই কাণ্ড টি ঘটিয়েছি। ভবিষ্যতে তিনি এমনটা আর হবে না বলেও আশ্বস্ত করেন স্টিভেন স্মিথ। নিজের অপরাদ স্বীকার করার পরেও অধিনায়ক  ছাড়তে হলো স্টিভেন স্মিথকে।

 

এখন দুই দিনের জন্য দলকে নেতৃত্ব দেবেন উইকেটরক্ষ টিম পেইন। খন্ডকালিন অধিনায়ক হিসেবে মনোনীত করেছে এই টেস্টের জন্য।সিএ চেয়ারম্যান ডেভিড পিভার জানিয়েছেন, অস্ট্রেলিয়া ক্রিকেটের স্বার্থে তিনি এই ঘটনার সুষ্ঠু তদন্ত করবেন।

Leave a Reply